বিষয়বস্তুতে চলুন

আবদুল হক চৌধুরী

উইকিউক্তি, মুক্ত উক্তি-উদ্ধৃতির সংকলন থেকে

আবদুল হক চৌধুরী (জন্ম: ২৪ আগস্ট, ১৯২২ - মৃত্যু: ২৬ অক্টোবর, ১৯৯৪) চট্টলবিদ নামে পরিচিত ইতিহাসবিদ। তিনি আব্দুল করিম সাহিত্যবিশারদের অনুসারি ছিলেন। তিনি চট্টগ্রাম, সিলেট এবং আরাকানের ইতিহাস সম্পর্কে গবেষণা করে খ্যাতি অর্জন করেন। ইতিহাসবিদ হিসেবে তার কাজের স্বীকৃতিস্বরূপ তাকে একুশে পদক দেয়া হয়। আবদুল হক চৌধুরীর স্মৃতি রক্ষার্থে গনপ্রজাতন্ত্রীবাংলাদেশ সরকারের সংস্কৃতিবিষয়ক মন্ত্রণালয় কর্তৃক নোয়াজিষপুরে স্মৃতিকেন্দ্র ও সংগ্রহশালা নির্মাণাধীন।

উক্তি[সম্পাদনা]

  • বৈচিত্র্যময়ী চট্টগ্রামের নামও বৈচিত্র্যে ভরা। খ্রিষ্টিয় দশম শতকের আগে চট্টগ্রাম নামের অস্তিত্ব ছিল না। অর্থাৎ চট্টগ্রাম নামের কোনো উৎসের সন্ধান পাওয়া যায় না।
    • বন্দর শহর চট্টগ্রাম,আবদুল হক চৌধুরী, পৃষ্ঠা ১১[১]
  • কোনো প্রাচীন ব্যক্তি তথা পরিবারবিশেষ সম্পর্কে প্রচলিত বা বর্ণিত জনশ্রুতি নির্বিচারে গ্রহণ করা বিপজ্জনক। কারণ সেরূপ জনশ্রুতিতে বংশকৌলীন, ধন- সম্পদ, বেরী-কুঁদা ইত্যাদির বর্ণনা প্রাধান্য পেয়ে থাকে, থাকে গোঁজামিলের প্রক্ষেপ; গৌণ হয়ে যায় সঠিক তথ্য। সেরূপ জনশ্রুতিকে ইতিহাসের উপাদান হিসেবে ব্যবহার করার আগে হিসেবনিকেশ ও যুক্তির কষ্টিপাথরে যাচাই করে সত্যটুকুই গ্রহণ করতে হয়।
    • বন্দর শহর চট্টগ্রাম,আবদুল হক চৌধুরী, পৃষ্ঠা ১৬৩[২]
  • মিষ্টি সুর নাসিরের কণ্ঠে এসে বাসা বাঁধলো যেন। চট্টগ্রামের সবগুলো সঙ্গীতের আসর জমিয়ে রাখতেন মোহাম্মদ নাসির তাঁর সুললিত কণ্ঠের সুরে। পল্লীর আসল রূপ যেন মূর্ত হয়ে উঠতো নাসিরের গানে।
    • বন্দর শহর চট্টগ্রাম,আবদুল হক চৌধুরী, পৃষ্ঠা ১৯৭[৩]
  • হিন্দু, বৌদ্ধ, মুসলমান ও খ্রিষ্টান পৃথিবীর এ চারটি মহান ও বৃহৎ ধর্মের মিলনভূমি চট্টগ্রাম।
    • বন্দর শহর চট্টগ্রাম,আবদুল হক চৌধুরী, পৃষ্ঠা ২৪১[৪]

আরও দেখুন[সম্পাদনা]

মোহাম্মদ নাসির

বহিঃসংযোগ[সম্পাদনা]