বিষয়বস্তুতে চলুন

আলী আনোয়ার

উইকিউক্তি, মুক্ত উক্তি-উদ্ধৃতির সংকলন থেকে

আলী আনোয়ার (৩ মার্চ ১৯৩৬ - ৩ মার্চ ২০১৪) ছিলেন একজন বাংলাদেশী শিক্ষাবিদ, গবেষক, সাহিত্যিক ও অনুবাদক। রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ে ইংরেজি বিভাগে প্রভাষক হিসেবে দায়িত্ব পালন করেছেন তিনি। ২০০৬ সালে প্রবন্ধে অবদানের জন্য তিনি বাংলা একাডেমি পুরস্কার লাভ করেন।

উক্তি[সম্পাদনা]

  • সংস্কৃতিই আমাদেরকে আপন-পর, হিন্দু-মুসলমান, ব্রাহ্মণ-চণ্ডাল, ছোটলোক-বড়লোক, চাষাভুসো, গ্রামীণ-নাগরিক, স্ত্রী-পুরুষ প্রভৃতি নানা আরোপিত অস্বাভাবিক অন্যায় নির্যাতনমূলক ও অপমানসূচক বিভাজনগুলি সম্পর্কে ও তাঁর তাৎপর্য সম্পর্কে আমাদের অবহিত করে। শুধু অবহিতই করে না, তা আমাদের মনোভঙ্গি ও ব্যবহারও নিয়ন্ত্রণ করে। এতটাই করে যে, আমরা ওইসব বিভাজনকে চিরন্তন, স্বাভাবিক ও বৈধ বলে ধরে নেই।
    • "বাঙালি সংস্কৃতির ভিতর ও বাহির", সাহিত্য-সংস্কৃতি নানা ভাবনা, বেঙ্গল পাবলিকেশন্স, ঢাকা, জুলাই ২০১৩।
  • ভাষা হচ্ছে মানুষের সৃষ্টিশীলতার, মেধার ও মননের শ্রেষ্ঠ অভিজ্ঞান।
    • "ভাষার রাজনীতি", সাহিত্য-সংস্কৃতি নানা ভাবনা, বেঙ্গল পাবলিকেশন্স, ঢাকা, জুলাই ২০১৩।
  • সমাজ যদি অসম ক্ষমতার নানা গোষ্ঠী, স্তর ও শ্রেণিতে বিভক্ত থাকে, তবে ভাষাও বিভিন্ন বর্ণে, গোত্রে, শ্রেণিতে বিভক্ত হয়ে পড়ে। অসম ক্ষমতা ভাষাকেও চিহ্নিত করে। অভিজাতদের ভাষা, বিদগ্ধজনের ভাষা, ব্রাত্যজনের ভাষা প্রভৃতির মধ্যে বিচ্ছেদের সীমারেখা টানা হয়ে যায়। একে অন্যের ভাষা, ভাবনা, বিষয় বুঝতে পারে না। জনসাধারণ কী বুঝতে পারে কাকে বলে ব্যক্তিস্বাতন্ত্র্য, আত্মপ্রকাশের স্বাধীনতা, রাষ্ট্রের নিরপেক্ষতা, ভিন্নমতাবলম্বীর অধিকার? ওইসব শব্দ তার কাছে জটিল, অনচ্ছ ও উৎকণ্ঠা-উদ্রেককারী। ভাষার দূরত্বই ক্ষমতার দূরত্ব সৃষ্টি করে।
    • "ভাষার রাজনীতি", সাহিত্য-সংস্কৃতি নানা ভাবনা, বেঙ্গল পাবলিকেশন্স, ঢাকা, জুলাই ২০১৩।
  • আমরা একই ভাষায় জন্মগ্রহণ করি, লালিত হই, কিন্তু শেষ পর্যন্ত সংস্কৃতিতে আলাদা হয়ে যাই। এটিই আমাদের সংস্কৃতির সংকট।
    • "ভাষার রাজনীতি", সাহিত্য-সংস্কৃতি নানা ভাবনা, বেঙ্গল পাবলিকেশন্স, ঢাকা, জুলাই ২০১৩।
  • সাহিত্যে মানুষের আত্মপরিচয় অনুভব ও ইতিহাসচেতনার পুনর্বাসনই আমাদের বর্তমান দুঃস্বপ্নের হাত থেকে মুক্তি দেবে, ক্ষমতার প্রলোভনলুব্ধ মাইয়োনিক রাজনীতি নয়।
    • "সাহিত্য ও রাজনীতি", সাহিত্য-সংস্কৃতি নানা ভাবনা, বেঙ্গল পাবলিকেশন্স, ঢাকা, জুলাই ২০১৩।
  • শিল্প প্রযুক্তিকে আশ্রয় করে পাশ্চাত্য পুঁজিবাদের বিকাশ সাম্রাজ্যবাদের রূপ ধরে সমগ্র বিশ্বজুড়ে দুশো বছর ধরে লুণ্ঠনই করেনি, উপনিবেশসমূহের স্বাভাবিক বিকাশকে দিয়েছে পঙ্গু করে, সংস্কৃতিকে দিয়েছে তছনছ করে, একদা সমৃদ্ধিকে ধ্বংস করে কোটি কোটি মানুষকে দিয়েছে দরিদ্র করে।
    • "একবিংশ শতাব্দীর বিজ্ঞানের স্বপ্ন ও দুঃস্বপ্ন", সাহিত্য-সংস্কৃতি নানা ভাবনা, বেঙ্গল পাবলিকেশন্স, ঢাকা, জুলাই ২০১৩।
  • সব ধর্মেই মৌলবাদী মত ও সম্প্রদায় আছে। যেহেতু কোনো ধর্মেই সাধারণ মানুষ মৌলবাদীদের মত ও পথ গ্রহণ করছে না, তাই ক্রমেই তারা উগ্র এবং উন্মত্ত হয়ে উঠছেন। এবং মারণাস্ত্র ও ধ্বংসের টেকনোলজি সহজলভ্য হওয়ার কারণে সন্ত্রাসের দিকে ঝুঁকছেন। মৌলবাদী মাত্রই অসহিষ্ণু। তারা স্বধর্মীয়দেরই ভিন্নমত, ভিন্ন তরিকা, ভিন্ন সেক্টের অস্তিত্ব সহ্য করতে পারেন না। অন্য ধর্মাবলম্বী হলে তো কথাই নেই।
    • "উপদ্রুত মানুষ ও অসহায় মানবতাবাদ", সাহিত্য-সংস্কৃতি নানা ভাবনা, বেঙ্গল পাবলিকেশন্স, ঢাকা, জুলাই ২০১৩।
  • বিজ্ঞানের কল্যাণকরতায় আমাদের আস্থা প্রায় অন্ধবিশ্বাসের পর্যায়ে পড়ে। কোনো কোনো বৈজ্ঞানিক যে সচেতনভাবে অমানবিক হতে পারেন এটা আমাদের বিশ্বাস হতে চায় না। অথচ যে বিজ্ঞানী জীবাণু বোমা তৈরি করেন বা নার্ভ-গ্যাস, তাকে আর যাই হোক মানবিক বলা যাবে না। তিনি সব সময় স্বতঃপ্রবৃত্ত হয়ে ওই সব গবেষণা হয়তো করেন না, কোনো প্রতিষ্ঠানের বা সংগঠনের প্রকল্পের অংশ হিসেবে করেন।
    • "উপদ্রুত মানুষ ও অসহায় মানবতাবাদ", সাহিত্য-সংস্কৃতি নানা ভাবনা, বেঙ্গল পাবলিকেশন্স, ঢাকা, জুলাই ২০১৩।

আলী আনোয়ার সম্পর্কে উক্তি[সম্পাদনা]

  • আমার বয়স বাড়ার সঙ্গে সঙ্গে আমি তাঁর মধ্যে কেবল একজন শিক্ষক নয়, কেবল একজন লেখক নয়, কেবল একজন চিন্তাশীল মানুষ নয়, দেখি একজন আপাদমস্তক বাঙালি আধুনিক মানুষকে।

বহিঃসংযোগ[সম্পাদনা]